www.machinnamasta.in

ওঁ শ্রীং হ্রীং ক্লী গং গণপতয়ে বর বরদ সর্বজনস্ময়ী বশমানয় ঠঃ ঠঃ

June 24, 2024 3:14 am

কলকাতা হাইকোর্টে অগ্নিকাণ্ডের আতঙ্ক সৃষ্টি হয় শুক্রবার সকাল সকাল। এদিন সকালের কাজকর্ম শুরুর মুখে ৩৪ নম্বর এজলাস থেকে পোড়া গন্ঢ বের হতে থাকে। সেই সময়ে এজলাসে ছিলেন আইনজীবী ও মামসলাকারীরা। বিচারপতি তীর্ঘঙ্কর ঘোষ এজলাসে সেই সময়ে উপস্থিত হননি। বেলা এগারোটার কিছু আগে কাজকর্ম শুরুর ঠিক পরপরই বিদ্যুতের তারের পোড়া গন্ধে ভরে যেতে থাকে এজলাস। উপস্থিত সকলের মধ্যেই আতঙ্ক শুরু হয়ে যায়। আতঙ্কে শোরগোল শুরু হয়ে যায়। খবর পেয়ে তড়িঘড়ি সেখানে মোতায়েন থাকা পুলিশকর্মীরা এজলাসে চলে আসেন। তাঁরাই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনার প্রাথমিক কাজ শুরু করে দেন। অল্প সময়ের মধ্যে অভশ্য পরিস্থিতি তাঁরা সামাল দিয়ে স্বাভাবিক করে দেন। এই ঘটনার জন্য ঘন্টাখানেক ব্যাহত হয় আদালতের কাজকর্ম।  এজলাসে উপস্থিত আইনজীবীদের বক্তব্য, এজলাসের ভিতর থেকে বিদ্যুতের তারের পোড়া গন্ধ পাওয়া যায়। সঙ্গে সঙ্গে খালি করে করে দেওয়া হয় এজলাস।  যদিও সেসময়ে যে এজলাসে উপস্থিত ছিলেন না বিচারপতি তীর্থঙ্কর ঘোষ। নিরাপত্তারক্ষীদের প্রাথমিক অনুমান, শর্ট সার্কিট থেকে এমন ঘটনা ঘটেছে।  তবে বড়সড় কোনও বিপদ হয়নি। আগুন আতঙ্কের জেরে প্রায় ঘণ্টাখানেক কাজকর্ম বন্ধ ছিল ৩৪ নং এজলাসের। পরে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে, আতঙ্ক কাটলে বিচারপতি এজলাসে ঢোকেন। শুরু হয় কাজ। তবে কী কারণে দিনের শুরুতেই ৩৪ নং কোর্টরুম থেকে এভাবে আগুন আতঙ্ক ছড়াল, তা নিয়ে এখনও নিশ্চিত নন নিরাপত্তারক্ষীরা। এই ঘটনার পর আদালতের নিরাপত্তা বেড়েছে। প্রতিটি কক্ষের বিদ্যুৎ সংযোগ পরীক্ষা করে দেখা হচ্ছে। যাতে পরবর্তী সময়ে এ ধরনের আতঙ্ক ফিরে না আসে, সেদিকে কড়া নজর রাখা হচ্ছে। 

administrator

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *