www.machinnamasta.in

ওঁ শ্রীং হ্রীং ক্লী গং গণপতয়ে বর বরদ সর্বজনস্ময়ী বশমানয় ঠঃ ঠঃ

April 14, 2024 4:45 pm
বিজেপি-কলকাতা হাইকোর্ট

অ্যাডভোকেট জেনারেল সৌমেন্দ্রনাথ মুখোপাধ্যায় (Advocate General)। তিনি অভিযোগ করেন, পূর্ব পরিকল্পিতভাবে এই হাঙ্গামা করা হয়েছে। বিজেপি কোথাও অভিযোগ জানায়নি যে,  রেল স্টেশনে তাদের পুলিশ ভয় দেখিয়ে আটকে দিয়েছিল। হাওড়ার শিবপুর থানা  এবং আদালত চত্বরে কোন বেআইনি জমায়েত করা যাবে না বলে পুলিশ আগেই বিজ্ঞপ্তি দিয়ে বিজেপিকে জানিয়ে দিয়েছিল।

নবান্ন্ অভিযানকে কেন্দ্র করে বিজেপি-পুলিশের খন্ডযুদ্ধ নিয়ে রাজ্য স্বরাষ্ট্র দফতরের রিপোর্ট তলব করল কলকাতা হাইকোর্ট (Calcutta HIghcourt)।

দুপুরে হাওড়া (Howrah) ও কলকাতা (Kolkata) উত্তালন হয় এই আন্দোলনকে কেন্দ্র করে। বিকালেই প্রপধান বিচারপতি প্রকাশ শ্রীবাস্তবের (Chief Justice Prakash Sribastav) এজলাসে গিয়ে অভিযোগ জানান বিজেপিপন্থী আইনজীবীরা (BJP legal Cell)। পরে মামলা দায়ের হলে বিকালে আদালতের নির্দিষ্ট সময়ের পরে ফের প্রধান বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চে এই আবেদনটির শুনানি হয়।

সেখানে বিজেপির আইনজীবী সুবীর সন্যাল অভিযোগ করেন, বিজেপি শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ মিছিলে পুলিশ আক্রমণ করেছে। মহিলা কর্মীদের গ্রেফতার করা হয়েছে। বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী (Suvendu Adhikary),  মহিলানেত্রী লকেট চট্টোপাধ্যায় (Locket Chatterjee), রাহুল সিনহাকে (Rahul Sinha) আটক করা হয়েছে। বিজেপি (BJP) আইনজীবীদের অভিযোগ পুলিশ শাসক দলের হয়ে কাজ করেছে। জেলায় জেলায় বিজেপির কর্মী সমর্থকদের ভয় দেখানো হয়েছে পুলিশের পক্ষ থেকে। রাজ্য বিজেপির সদর দফতরের বিজেপির নেতা কর্মীদের বন্দি করে রাখার অভিযোগ।পুলিশ অধিকারীদের সাথে যোগাযোগ করা হলেও তাঁরা কোন পদক্ষেপ গ্রহণ করেনি বলেও অভিযোগ করেন তাঁরা।

এর বিরোধীতা করে বিজেপির দাবী খারিজ করে দেন রাজ্যের অ্যাডভোকেট জেনারেল সৌমেন্দ্রনাথ মুখোপাধ্যায় (Advocate General)। তিনি অভিযোগ করেন, পূর্ব পরিকল্পিতভাবে এই হাঙ্গামা করা হয়েছে। বিজেপি কোথাও অভিযোগ জানায়নি যে,  রেল স্টেশনে তাদের পুলিশ ভয় দেখিয়ে আটকে দিয়েছিল। হাওড়ার শিবপুর থানা  এবং আদালত চত্বরে কোন বেআইনি জমায়েত করা যাবে না বলে পুলিশ আগেই বিজ্ঞপ্তি দিয়ে বিজেপিকে জানিয়ে দিয়েছিল।

১০ই সেপ্টেম্বর পুলিশ বিজেপিকে জানিয়ে দেয় বেআইনি জমায়েত নিষিদ্ধ। কাজের ব্যস্ততম সময়ে মানুষের জনজীবন বিপর্যস্ত করে কোন মিছিল-সমাবেশ-জমায়েত করা হবে না। কিন্তু আন্দোলনের নামে পুলিশের গাড়িতে আগুন দেওয়া হয়েছে। পুলিশের একাধিক কিয়স্ক ভাঙচুর করা হয়েছে। এমনকী, ফুটপাতের রেলিং পর্যন্ত ভেঙে দেওয়া হয়েছে। এমজি রোড এলাকার ঘটনা এটি। হাওড়ার পুলিশের ১৫ জন বাধা দিতে গিয়ে গুরুতর আহত। বিদ্যুতের খুঁটি উপড়ে ফেলা হয়েছে বলে অভিযোগ এডভোকেট জেনারেলের। আমি আশাকরি আদালত এই ধরণের মামলাকে গুরুত্ব না দিযে মামলাকরিকে আর্থিক জরিমানা করবে।

আজকে বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী ১৪৪ ধারা উপেক্ষা করেছিলেন বলেই পুলিশ গ্রেফতার করেছে। তিনি শুধু নয়, যাঁরা আইনশৃঙ্খলা ভঙ্গ করার চেষ্টা করেছেন, পুলিশ তাদেরই গ্রেফতার করেছেন।

কিন্তু বিজেপির আইনজীবী সুবীর সান্যাল অভিযোগ করেন, গত ১৯ জুলাই থেকে ১৭ই সেপ্টেম্বর পর্যন্ত এই নির্দেশিকা বলবৎ থাকবে, এমন নোটিশ দিলেও তার কারণ দর্শানো হয়নি। পাশাপাশি পুলিশ আটকানো নিয়ে উত্তর বঙ্গ শুধু নয় দক্ষিণ বঙ্গের বহু রেলস্টেশনের স্টেশন মাস্টারের কাছে অভিযোগ জানানো হয়েছে। কলেজ স্ট্রিট চত্বরে আমাদের বিজেপি সদর দফতর। সেখানে কেন পুলিশ মোতায়েন করে কর্মীদের আটকানো হলো। কলকাতা পুলিশ কমিশনার কোন বিজ্ঞপ্তি জারি করেনি তাহলে কেন করলো পুলিশ।

দুপক্ষের শুনে প্রধান বিচারপতি মন্তব্য করেন, সরকারি-বেসরকারি সম্পত্তি নষ্ট যেমন করা যাবে না, তেমনি অকারণে কাউকে গ্রেফতার করা যাবে না। মামলায় প্রাথমিক পর্যবেক্ষণ প্রধান বিচারপতির। এরপরেই রাজ্যের কাছে রিপোর্ট তলব করে মামলার শুনানি স্থগিত রাখে ডিভিশন বেঞ্চ। ফের আগামী সোমবার শুনানি হবে।

administrator

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *