www.machinnamasta.in

ওঁ শ্রীং হ্রীং ক্লী গং গণপতয়ে বর বরদ সর্বজনস্ময়ী বশমানয় ঠঃ ঠঃ

June 19, 2024 4:49 pm
liquor

দিন বদলেছে। যুগ বদলেছে। বদলেছে জীবনযাত্রা। বদলেছে মানুষের টেস্ট। হাইটেক দুনিয়ায় মানুষ এখন ঘরমুখো। অনলাইনে অর্ডার দিয়ে খাওয়ার দাওয়ার ঘরেই আনিয়ে রসনার তৃপ্তি ঘটছে। তবে বাদ থাকে কেন মদ। যে মদ, কেন্দ্র ও রাজ্যকে বিপুল পরিমাণে রাজস্ব দিয়ে থাকে।

দিন বদলেছে। যুগ বদলেছে। বদলেছে জীবনযাত্রা। বদলেছে মানুষের টেস্ট। হাইটেক দুনিয়ায় মানুষ এখন ঘরমুখো। অনলাইনে অর্ডার দিয়ে খাওয়ার দাওয়ার ঘরেই আনিয়ে রসনার তৃপ্তি ঘটছে। তবে বাদ থাকে কেন মদ। যে মদ, কেন্দ্র ও রাজ্যকে বিপুল পরিমাণে রাজস্ব দিয়ে থাকে। তাই বোধ হয় কেন্দ্রের পাইপ লাইনে বাড়ি বাড়ি মদ পৌছে দেওয়ার পরিকল্পনা। এমনই ঈঙ্গিত ভাইরাল হওয়া একটি কেন্দ্রের নির্দেশিকায়।

কষ্ট করে দোকান পর্যন্ত যেতে হচ্ছে না। কল খুললেই মিলছে মদ (Alcohol)। পুরসভার জলের মতো পাইপ লাইনের মাধ্যমে মাধ্যমে বাড়ি বাড়ি পৌঁছে যাচ্ছে রঙিন পানীয়। জীবনে একবার এই স্বপ্ন দেখেননি, এমন মদ্যপায়ী খুঁজে পাওয়া ভার। সেই স্বপ্ন যদি বাস্তবে পরিণত হয়! সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া কেন্দ্রীয় সরকারের একটি নোটিসে এমন ধন্দই তৈরি হয়। বিস্মিত হন সাধারণ মানুষরা। এই ধন্দের কারণ কী?

এই অবস্থায় আসরে নামতে বাধ্য হয় তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রক (Information and Broadcasting Ministry)। মজাদার সংক্ষিপ্ত এক টুইট করা হয় প্রেস ইনফরমেশন ব্যুরোর তরফে (PIB)। সেখানে লেখা হয়, “বন্ধুরা, এতটাও আশা করবেন না!” (চিল গাইস, ডোন্ট গেট ইউর হোপস টু হাই!!) এইসঙ্গে ভুয়ো নোটিস ও নানা পাটেকরের একটি ছবি দেয় পিআইবি। নানা পাটেকর, অনিল কাপুর অভিনীত ‘ওয়েলকাম’ সিনেমার দৃশ্য। পিআইবির পোস্ট করা ছবিতে উদয় ভাই রূপী আত্মনিয়ন্ত্রণে নিজেকেই বলছেন, ‘কন্ট্রোল উদয়’।

কেন্দ্রের এই নোটিস ভুয়ো হলেও মাঝে দক্ষিণের রাজ্যে কেরলে আজব চাঞ্চল্য ছড়িয়েছিল। সেখানে বাস্তবিক কল থেকে বেরোচ্ছিল মদ। ত্রিশূরের চালাক্কুড়ির একটি আবাসনে ১৮টি পরিবারের বাস। সেখানেই এই কাণ্ড ঘটে। শেষ পর্যন্ত জানা যায়, ওই আবাসনের পাশে ছিল একটি পানশালা। একাধিক আইনি জটিলতায় প্রায় ৬ বছর আগে বন্ধ হয় সেটি। মাঝে শুল্ক দপ্তরের আধিকারিকরা ওই পানশালায় যান। বাজেয়াপ্ত হওয়া ছ’হাজার লিটার মদ নষ্টের কাজ শুরু করেন। নষ্টের সময় মদ পানশালার নালার মাধ্যমে পাশের কুয়োয় গিয়ে মেশে। ওই কুয়ো থেকেই জল ওঠে আবাসনের জলের ট্যাঙ্কে। তাতেই হয় বিপত্তি।
administrator

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *